ব্রিটেনে আগামী ৭ অক্টোবর থেকে সপ্তাহ ব্যাপী পালিত হবে ২১তম ন্যাশনাল কারী উইক

ব্রিটিশবাংলা নিউজ ডেস্ক : ব্রিটেনে আগামী ৭ থেকে ১৩ অক্টোবর সপ্তাহব্যাপী পালিত হচ্ছে ২১তম ন্যাশনাল কারী উইক। ন্যাশনাল কারী উইক এ বাংলাদেশী রেষ্টুরেন্ট ব্যাবসায়ীদের সক্রিয় অংশ গ্রহনের মাধ্যমে ব্যবসায় আয় বাড়ানোর সুযোগকে কাজে লাগানোর জন্য বাংলাদেশ ক্যাটারার্স এসোসিয়েশন (বিসিএ) এবং কিংফিশার যৌথভাবে কাজ করছেএ উপলক্ষে পূর্ব লন্ডনের একটি রেস্টুরেন্টে বৃহস্পতিবার ( ২৬ সেপ্টেম্বর২০১৯) বিসিএ এবং কিংফিশার যৌথভাবে এক সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করে।

সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন বিসিএ‘র প্রেস এন্ড পাবলিকেশন সেক্রেটারি ফরহাদ হোসেন টিপু। সংবাদ সম্মেলনে বাংলাদেশ ক্যাটারার্স এসোসিয়েশন (বিসিএ) ব্রিটেনে বাংলাদেশী রেষ্টুরেন্ট গুলোতে ‘লোকাল ডিনাসর্‘ দের সাথে আরও বেশী করে সংযোগ স্থাপনের জন্য কিংফিশারের সহযোগিতায় ন্যাশনাল কারী উইক এ অংশগ্রহনের জন্য সকল রেষ্টুরেন্ট ব্যাবসায়ীদের প্রতি আহবান জানিয়েছে।

কারী লাভার্সদের আকৃষ্ট করতে এই নিদৃষ্ট সময়ে কাস্টমারদের জন্য ২৫% ডিসকাউন্ট এর সুযোগটি সকলের কাজে লাগানোর অনুরোধ করা হয়। স্থানীয় কারী লাভার্সদের ‘লোকাল ডিনাসর্‘ শিরোনামের এই সুযোগটি নিতে সংশ্লিষ্ট রেষ্টুরেন্ট গুলোকে তাদের ওয়েভসাইটে (http://www.nationalcurryweek.co.uk/ to join) গিয়ে Trade section’ এ একটি ফরম পূরণ করতে হবে। সেখানে সার্চ অপশনে গিয়ে রেষ্টুরেন্ট এর পোস্ট কোড দিয়ে কাস্টমারগণ প্রমোশনাল ভাউচারটি ডাউনলোড করতে পারবেন। বিসিএ বিশ্বাস করে দুপক্ষের আন্তরিক অংশগ্রহনে অর্থাৎ রেষ্টুরেন্ট ব্যবসায়ী এবং লোকাল কারী লাভার্সরা সমানভাবে উপকৃত হবেন।

‘উইন – উইন ফর অল‘ শিরোনামে বিসিএ ন্যাশনাল কারী উইক এ সংশ্লিষ্ট সকলকে অনুপ্রাণিতের কাজটি সক্রিয়ভাবে করছে। আগামী ২৭ অক্টোবর রবিবার লন্ডনের ওয়েসমিনিস্টার ব্রিজ এর অভিজাত পার্ক প্লাজা হোটেলে অনুষ্ঠিত হচ্ছে বিসিএ’র এওয়ার্ড অনুষ্ঠান। ১৪তম বিসিএ এওয়ার্ডের শিরোনাম হলো বিসিএ: হোম অফ গ্রেট ব্রিটিশ কারি ।

ন্যাশনাল কারী উইক এ বিসিএ ব্রিটেনের কারী ইন্ড্রাষ্টির গুরুত্বপূর্ণ এওয়ার্ড অনুষ্ঠানকে সফলভাবে মূলধারায় প্রচার করে সরকারের উচ্চ পর্যায়ে বাংলাদেশী কারী শিল্পের বর্তমান সমস্যা এবং সম্ভাবনা গুলোকে তুলে ধরতে চায়। ২১তম ন্যাশনাল কারী উইক এ ব্রিটেনের রেষ্টুরেন্ট ব্যাবসায়ীরা সক্রিয় অংশগ্রহন করলে যে সব সুবিধা পাবেন তাহলো-

এক. রেষ্টুরেন্টগুলো ব্রিটেনের জাতীয় কারী ম্যাপ এ অন্তর্ভূক্তির মাধ্যমে কাস্টমারদের কাছে নিজেদের কারী ডিস গুলোকে উপস্থাপনের সুযোগ নেয়া এবং ন্যাশনাল কারী উইক সময়ে কাষ্টমারদের ভাউচার ডাউনলোড এর মাধ্যমে ২৫% ছাড় নেবার সুযোগ করে ল্যোকাল কারী লাভার্সদের সাথে সম্পর্ক উন্নয়ন ।

দুই. রেষ্টুরেন্টগুলোর প্রচার ও প্রসারের জন্য ন্যাশনাল কারী উইক এ অফিসিয়াল লগো সহ অন্যান্য প্রয়োজনীয় উপকরণগুলো ডাউনলোড এবং ব্যবহারের সুযোগ।

তিন. ব্রিটেনের মর্যাদাকর ন্যাশনাল কারী উইকে একজন ব্যবসায়ী প্রতিনিধি হয়ে নিজ ব্যাবসার উন্নতি এবং সুনাম অর্জন সহ কাস্টমারদের সাথে সম্পর্ক উন্নয়ন।

সংবাদ সম্মেলনে বক্তব্য রাখেন বিসিএ‘র প্রেসিডেন্ট এম এ মুনিম, সেক্রেটারি জেনারেল মিঠু চৌধুরী, চিফ ট্রেজারার সাইদুর রহমান বিপুল, সাবেক সেক্রেটারী জেনারেল ওলি খান। প্রশ্নত্তোর পর্বটি পরিচালনা করেন প্রেস এন্ড পাবলিসিটি সেক্রেটারী ফরহাদ হোসেন টিপু প্রমুখ।

Please follow and like us:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Facebook
YouTube
YouTube
error: Content is protected !!